বুধবার, ০৫ অগাস্ট ২০২০, ১০:১৯ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
পাথর্শী ইউনিয়নে নিজস্ব অর্থায়নে বন্যার্তদের মাঝে শুকনো খাবার বিতরণ লামায় জিপগাড়ী এক্সিডেন্টে মায়ের সামনে শিশু মৃত্যু লামায় ভোররাতে পুলিশের অভিযানে ৩৫০ পিস ইয়াবা সহ নারী গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ শেরপুরে ঈদ পরবর্তী শুভেচ্ছা বিনিময় করলেন জেলা প্রশাসক সিলেট জেলায় করোনায় সুস্থতার চেয়ে মৃত্যু এগিয়ে হালুয়াঘাটে বন্যা কবলিত মানুষের কাছে ত্রান সহায়তা নিয়ে হাজির হলেন, বিএনপি নেতা সালমান ওমর রুবেল। ইসলামপুরে শহীদ শেখ কামাল এর জন্মবার্ষিকী পালিত করোনা ও বন্যা মোকাবিলায় সরকারের পদক্ষেপ লিপ সার্ভিসেই সীমাবদ্ধঃ প্রিন্স ধোবাউরা বন্যা কবলিত মানুষের পাশে ত্রান সামগ্রী নিয়ে হাজির হলেন সৈয়দ এমরান সালেহ’ প্রিন্স । শেরপুরে বিভিন্ন স্থানে বজ্রপাতে ৩জনের মৃত্যু

নামাযে পাবন্দী হবেন কীভাবেঃ- মুফতি এহতেশাম ক্বাসিমী

রিপোর্টারঃ
  • প্রকাশের সময় | রবিবার, ২১ জুন, ২০২০
  • ৬১ বার পঠিত

এম.এ.রহীমঃ সিলেট বিভাগীয় সম্পাদক।

ঈমানের পরে সবচাইতে উত্তম ও গুরুত্বপূর্ণ আমল হচ্ছে নামায। প্রত্যেক প্রাপ্তবয়স্ক মুসলমান নারী-পুরুষের উপর দৈনন্দিন পাঁচ ওয়াক্ত নামায আদায় করা ফরয বা অত্যাবশ্যক। নামাযের প্রতি যত্নবান হওয়া এবং পাবন্দীর সাথে তা আদায় করা আমাদের প্রত্যেকের জন্য জরুরী।

যারা নিয়মিত নামাযী নন, মাঝেমধ্যে মন চাইলে নামাজ পড়েন, তাদের জন্য উচিত, বেনামাযির ভয়ানক শাস্তির কথা চিন্তা করা।

নামায ছেড়ে দেয়াকে আল্লাহর রাসূল সা. কুফুরির সাথে তুলনা করেছেন। বলেছেন, যারা বিনা ওজরে স্বেচ্ছায় নামায ছেড়ে দিলো তারা যেনো কুফরী করলো।

তাদের হাশর ফেরাউন, হামান ও কারুণদের সাথে হবে বলেও রাসূলে কারীম সা. আরেক হাদীসে বলেছেন। কেয়ামতের দিন সর্বপ্রথম নামাযের হিসাব নেয়া হবে।

এক ওয়াক্ত নামায বিনা ওজরে ছেড়ে দিলে লক্ষ- কোটি বছর জাহান্নামের আগুনে জ্বলতে হবে। (নাউযুবিল্লাহি মিন যালিক) যারা নিয়মিত নামাযী নন, তারা দুযখের ভয়ানক অবস্থা জানলে শুনলে আশা করি নামাযের প্রতি তাদের উদাসীনতা ধীরে ধীরে হ্রাস পাবে ইনশাআল্লাহ।

কেউ যদি অলসতার কাছে পরাস্ত হয়ে নামায ছেড়ে দেন, তাহলে তার আত্মার চিকিৎসার প্রয়োজন। আর এচিকিৎসার ধরণ হচ্ছে- নিজের উপর আর্থিক ও শারীরিক জরিমানা আরোপ করা।

এ জরিমানা একদম‌ কমও হবে না, যেটা আদায় করতে গায়ে লাগে না। আবার বেশিও হবে না যেটা আদায় করা তার পক্ষে সম্ভবপর হবে না।

যখনই নামায ছুটে যাবে তখনই এই জরিমানা এতীম- মিসকিনকে দেয়ার চেষ্টা করবে। আত্মার উপর এই জরিমানা সুন্নত সম্মত। অথবা শারীরিক জরিমানা নির্ধারণ করে ফেলবে।

আর তা এভাবে যে, আর যদি নামায তরক করি তাহলে এই নামাযের কাযা করার পাশাপাশি ২০ রাকাত নফল নামায আদায় করবো।

এরকম দুই তিনবার করতে পারলে আশাকরি অলসতা ও উদাসীনতা বিদায় নেবে। অথবা এটাও করা যেতে পারে, যদি আর এক ওয়াক্ত নামায কাযা হয় তাহলে এক বেলা খানা বন্ধ রাখবো, যদি দুই ওয়াক্ত নামায কাযা হয় তাহলে দুবেলা খানা বন্ধ রাখবো।

এভাবে দুয়েক দিন করতে থাকলে আত্মা অনেক কষ্ট পাবে আর অতি দ্রুত নামাজের প্রতি পাবন্দি হয়ে উঠবে ইনশাআল্লাহ। (আগলাতুল আওয়াম- পৃঃ ৬৬)

লেখকঃ মুফতি এহতেশাম ক্বাসিমী।

নিউজটি সেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরো সংবাদ

আজকের নামাজের সময়সুচী

সেহরির শেষ সময় - ভোর ৪:০৬ পূর্বাহ্ণ
ইফতার শুরু - সন্ধ্যা ৬:৪২ অপরাহ্ণ
  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:১১ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০৮ অপরাহ্ণ
  • ৪:৪১ অপরাহ্ণ
  • ৬:৪২ অপরাহ্ণ
  • ৮:০২ অপরাহ্ণ
  • ৫:২৯ পূর্বাহ্ণ

©২০১৮ সর্বস্তত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | দৈনিক লাল সবুজের ১১ নং সেক্টর অব বাংলাদেশ

কারিগরি সহযোগিতায় durjoybangla.com
themesba-lates1749691102